ক্রিকেটটি টোয়েন্টি বিশ্বকাপ
Trending

বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান পরিসংখ্যান T20 ত্রিদেশীয় সিরিজের আগে দেখে নিন কারা এগিয়ে!

টি২০ ক্রিকেটে বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান পরিসংখ্যানে কে কতটা এগিয়ে চলুন দেখে আসি এমন সব পরিসংখ্যা।টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ এবং পাকিস্তান সর্বপ্রথম মুখোমুখি হয়েছিল ২০০৭ সালে। তারপর থেকে এখনো পর্যন্ত(২০২২) দুই দল মুখোমুখি হয়েছে মোট ১৫ বার। দুই দলের এই ১৫ বার মুখোমুখিতে পাকিস্তানের জয়ের পাল্লা অনেক ভারী।

১৫ ম্যাচের মধ্যে পাকিস্তান জয়লাভ করেছে ১৩ টিতে সেখানে বাংলাদেশের জয় মাত্র ২ টি ম্যাচে। আজ শুক্রবার (৭অক্টোবর) নিউজিল্যান্ডে অনুষ্ঠিত ত্রিদেশীয় সিরিজে যখন বাংলাদেশ-পাকিস্তান মুখোমুখি হবে তখন পরিসংখ্যান বিচারে বাবর আজমের পাকিস্তান এগিয়ে থাকবে অনেক বেশি।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ-পাকিস্তান দুই দলের মুখোমুখিতে বাংলাদেশের দলীয় সর্বোচ্চ রান ১৭৫ সেখানে পাকিস্তানের দলীয় সর্বোচ্চ রান ২০৩।এ তো গেল টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ পাকিস্তানের দলীয় পরিসংখ্যান। চলুন এবার দেখে আসি টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ পাকিস্তানের ব্যক্তিগত পরিসংখ্যানে কে কতটা এগিয়ে।

বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান পরিসংখ্যান T20
বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান পরিসংখ্যান T20

টি২০ ক্রিকেটে বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তানের ব্যক্তিগত পরিসংখ্যান

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ পাকিস্তানের মুখোমুখি লড়াইয়ে বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ রান সাকিব আল হাসানের। সাকিব-আল-হাসান এখনো পর্যন্ত পাকিস্তানের সাথে ৯ টি ম্যাচ খেলে রান করেছেন ২৯২। এদিক দিয়ে পাকিস্তানের পক্ষে ব্যক্তিগতভাবে সর্বোচ্চ রান সংগ্রহকারী মোহাম্মদ হাফিজ। মোহাম্মদ হাফিজ বাংলাদেশের সাথে ১০ ম্যাচ খেলে রান করেছেন ২৭৭।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশ পাকিস্তানের মুখোমুখি লড়াইয়ে এক ইনিংসে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রানের দিক দিয়েও বাংলাদেশের পক্ষে আছে সাকিব আল হাসান। পাকিস্তানের বিপক্ষে সাকিব আল হাসানের আছে ৫৪ বলে ৮৪ রানের ইনিংস। এদিক দিয়ে পাকিস্তানের পক্ষে এক ইনিংসে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রান আহমেদ শেহজাদের। আহমদ শেহজাদ মাত্র ৬২ বলে করেন ১১১ রান।

আরো পড়ুনঃ ত্রিদেশীয় সিরিজের সময়সূচি ২০২২

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে পাকিস্তানের বিপক্ষে সাকিব আল হাসানের রয়েছে ৩টি অর্ধশতক। এতক্ষণ তো গেল ব্যাটিংয়ের কথা চলুন এবার দেখে আসি দুই দলের মুখোমুখি লড়াইয়ে বোলিং পরিসংখ্যান। দুইদলের বোলারদের মধ্যে বাংলাদেশের পক্ষে আব্দুর রাজ্জাক নিয়েছেন সর্বোচ্চ ৭টি(৭ম্যাচ)উইকেট। এবং পাকিস্তানের পক্ষে শাহিদ আফ্রিদি ১০ ম্যাচ খেলে নিয়েছেন ১০টি উইকেট। বেস্ট বোলিং ফিগার বাংলাদেশের পক্ষে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ৩/৩ এবং পাকিস্তানের পক্ষে বেস্ট বোলিং ফিগার মনসুর আমজেদ ১০/৩।

আশাকরি বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান পরিসংখ্যান T20 কারা এগিয়ে তা সম্পূর্ণ নিবন্ধটি পড়লে ভালভাবে বুঝতে পারবেন। আরো কিছু জানার থাকলে নিচে কমেন্ট করে জানাতে পারেন। ধন্যবাদ…

Khela18 থেকে সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button